মনিপুরের স্বাধীনতা ঘোষণা, ভারতে বাড়লো অস্থিরতা

অনলাইন পত্রিকা ডেস্কঃ ভারতে কাশ্মীর রাজ্যের স্বায়ত্তশাসন বাতিলের পর সৃষ্ট সং°কট এখনো চলমান। এরই মধ্যে লন্ডন প্রবাসী দুই মনিপুরী নেতা মনিপুরী স্টেটস কাউন্সিল বা প্রবাসী মনিপুর সরকারের ঘো°ষণা দিয়েছেন। এতে ভারতের অখণ্ডতা ভে°ঙে যাওয়ার আশং°কা তৈরি হয়েছে। অস্থি°রতা বিরাজ করছে সরকার ও রাজনৈতিক অঙ্গনে।

কাতার ভিত্তিক সংবাদ মাধ্যম আল-জাজিরার খবরে বলা হয়, আজ লন্ডন প্রবাসী দুই মনিপুরী নেতা ইয়ামবিন বিরেন ও নরেংবাম সমরজিৎ এক সংবাদ সম্মেলনে ২০১২ সালে ঘোষিত স্বাধীনতার ঘো°ষণা পত্র পাঠ করেন। একই সাথে তারা ‘প্রবাসী মনিপুর সরকার’ গঠনের ঘোষণা দেন। ঐ ঘোষণায় বিরেন নিজেকে প্রবাসী মনিপুর সরকারের মুখ্যমন্ত্রী দাবী করেন। আর সমরজিৎ নিজেকে নবগঠিত সরকারের পররাষ্ট্র ও প্রতিরক্ষামন্ত্রী হিসেবে উপস্থাপন করেন। তাদের এই ঘোষণা মনিপুরী রাজা লেইশেম্বা সানাজওবার পক্ষে দেওয়া হয়েছে বলেও দাবী করেন নেতারা।

সংবাদ সম্মেলনে প্রবাসী মনিপুর সরকারের স্বঘোষিত পররাষ্ট্র মন্ত্রী বলেন, প্রবাসী সরকার জাতিসংঘে স্বাধীন মনিপুর রাষ্ট্রের স্বীকৃতির জন্য চেষ্টা চালাবেন। সমরজিৎ বলেন, “ আমরা বিভিন্ন দেশের কাছে স্বাধীনতার স্বীকৃতি চাইবো। আশা করছি অনেক দেশ আমাদের স্বাধীনতাকে স্বীকৃতি দেবে”।

প্রসঙ্গত, ‘মনিপুর’ ভারতের সেবেন সিস্টার্সের অন্তর্ভুক্ত রাজ্যগুলোর একটি। এটি ভারতের অন্যতম ছোট রাজ্য। এই রাজ্যের জনসংখ্যা প্রায় ২৮ লাখ। রাজ্যের বাসিন্দাদের প্রায় সবাই স্থানীয় মনিপুরী।

সূত্রঃ আল-জাজিরা
আরও পড়ুন

Comments are closed.